পুনর্মিলনীতে ঢাবির দর্শন বিভাগের প্রাক্তন শিক্ষার্থীরা

ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সহপাঠীদের সঙ্গে ক্যামেরার ফ্রেমে বন্দি হচ্ছেন নতুন প্রজন্মের হাতে-ছবি- সুমন শেখ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: সৌহার্দ্য ও স্মৃতির বন্ধনে আবদ্ধ আমরা, এসো মিলি প্রাণের আনন্দে স্লোগান নিয়ে পুনর্মিলনীতে যোগ দিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) দর্শন বিভাগের প্রাক্তন শিক্ষার্থীরা।

শুক্রবার (০৫ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) মিলনায়তনে এ পুনর্মিলনীর উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। অনুষ্ঠানের শুরুতে বিভিন্ন ধর্মগ্রন্থ থেকে পাঠ করা হয়। এছাড়া স্মরণিকা ‘প্রাণপ্রবাহ’র মোড়ক উন্মোচন করা হয়।

দশমবারের মতো আয়োজিত এ অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ছিলেন ঢাবির ইমেরিটাস অধ্যাপক ড. সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী। তিনি বলেন, দর্শনের ছাত্র মানে দার্শনিক নয়, কিন্তু তারা দর্শন পড়ে যে আনন্দ পায় অন্যরা তা পায় না। দর্শন আছে বলে সাহিত্য সার্বজনীন। দর্শন যুক্তি মেনে চলে, যুক্তি ছাড়া এক পা এগোয় না।

উদ্বোধনকালে অধ্যাপক আখতারুজ্জামান বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাকালীন সময়ের বিভাগগুলোর মধ্যে শীর্ষস্থানীয় বিভাগ হচ্ছে দর্শন বিভাগ। আর মাত্র তিন বছর পর বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে এই বিভাগও শতবর্ষ উদযাপন করার গৌরব অর্জন করবে। সব মানুষকে ঐক্যবদ্ধ করে রাখার ক্ষমতা দর্শনের রয়েছে।

বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মো. সাজাহান মিয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ঢাবি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন সভাপতি একে আজাদ। দর্শন বিভাগ অ্যালমনাই অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মো. আবদুস সাত্তার মিয়াজী স্বাগত বক্তব্য রাখেন। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিভাগের অধ্যাপক আমিনুল ইসলাম, অধ্যাপক হারুনুর রশিদ প্রমুখ।

দিনব্যাপী এ আয়োজনের মধ্যে রয়েছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান র‌্যাফেল ড্র’সহ বিভিন্ন আয়োজন। পুনর্মিলনীকে ঘিরে টিএসসিকে সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। দর্শন বিভাগের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে ছবি তোলার জন্য তৈরি করা হয়েছে বিলবোর্ড। যেখানে এক সময়ের সহপাঠীদের সঙ্গে ক্যামেরার ফ্রেমে বন্দি হতে দেখা যায় তাদের।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৫, ২০১৮
এসকেবি/জেডএস

শিল্পকলায় গুজরাটি সন্ধ্যা
টয়াকে শুভ কামনা জানালেন সিয়াম
চাঁদের অভিমুখে মানুষের যাত্রা
ব্যয় বাড়বে কুম্ভ, সাফল্য পাবেন বৃষ
ফ্রি-স্টাইল ফুটবলে হেডস্কার্ফে মালয়েশিয়ান তরুণী!
ফাইনালে সেই পেনাল্টির সিদ্ধান্ত ঘিরে বিতর্ক
বিশ্বকাপজয়ে প্যারিস যেন উৎসবের নগরী 
বিশ্বকাপের সেরা একাদশে এমবাপ্পে-মদ্রিচ-হ্যাজার্ডরা
প্রেসিডেন্ট কোলিন্দের সান্ত্বনা পেলেন মদ্রিচ
এবার অপেক্ষা কাতার বিশ্বকাপের