রথযাত্রা উৎসবে সরকারি ছুটি ঘোষণাসহ ৬ দাবি

চট্টগ্রাম প্রতিদিন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

রথযাত্রা উপলক্ষে ইসকনের সংবাদ সম্মেলন

চট্টগ্রাম: রথযাত্রা উৎসবের দিন সরকারি ছুটি ঘোষণাসহ ৬ দফা দাবি জানিয়েছেন আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন) চট্টগ্রাম। মঙ্গলবার (১০ জুলাই) বিকেলে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উৎসব উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি জানান নন্দনকানন ইসকন মন্দিরের সভাপতি গদাধর দাস ব্রহ্মচারী।

পাশাপাশি বিশ্বব্যাপী সনাতন ধর্ম প্রচারে অগ্রগামী সংগঠন ইসকনের বিভিন্ন মঠ, মন্দির ও ভক্তদের ওপর হামলা শান্তিপ্রিয় মানুষের হৃদয়কে বিদীর্ণ করার কথাও জানানো হয়।

গদাধর দাস ব্রহ্মচারী বলেন, রথযাত্রা উৎসব পৃথিবীর দ্বিতীয় সর্ববৃহৎ মানুষের মিলনোৎসব। যার উৎপত্তি ভারতের উড়িষ্যা রাজ্যের শ্রীজগন্নাথ পুরীধামে। পুরীধামে বিরাজিত আছে জগতের অধীশ্বর, পরাম দয়ালু, জীবের পরম আশ্রয়দাতা পরমেশ্বর ভগবান জগন্নাথ। ইসকনের প্রতিষ্ঠাতা আচার্য জগৎগুরু শ্রীল প্রভুপাদের কল্যাণে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের অন্যতম প্রধান উৎসব জগতের নাথ জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উৎসব সারাবিশ্বে প্রায় ১২৭টি দেশের বড় বড় শহরে ধর্মপ্রাণ নরনারীর অংশগ্রহণে মহাসমারোহে অনুষ্ঠিত হয়।

যার মাধ্যমে বাংলার বৃষ্টি, প্রথা, সংস্কৃতি, ভাষা, ঐতিহ্য সারাবিশ্বে প্রচারিত ও সুপ্রতিষ্ঠিত। তাই এ রথযাত্রা উৎসবের দিন রাষ্ট্রীয়ভাবে সরকারি ছুটি ঘোষণা, সনাতন ঐতিহ্যের উজ্জ্বল নক্ষত্র সদৃশ বিলুপ্তপ্রায় মন্দির স্থাপনা, স্মৃতি স্থান ও তীর্থস্থানগুলো ধ্বংসের হাত থেকে রক্ষা করে সংরক্ষণ ও রক্ষণাবেক্ষণ এবং প্রসারের জন্য সরকারি বরাদ্দ নিশ্চিত করা, নগরীর নন্দনকানন এলাকার রাধামাধব মন্দির, লোকনাথ মন্দির ও বিদ্যালয়ের অর্পিত সম্পত্তি অবমুক্ত করা, হিন্দু কল্যাণ ট্রাস্টকে হিন্দু ফাউন্ডেশনে রূপদান করা, রথযাত্রায় অংশগ্রহণকারী জনগণের ভোগ্য খাদ্যবস্তু জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রদান করা, প্রত্যেক মঠ, মন্দির ও দেবোত্তর সম্পত্তিগুলোর নিরাপত্তা দেওয়ার জোর দাবি জানানো হয়।

সাংবাদিকের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন ইসকনের বিভাগীয় সেক্রেটারি চিন্ময় কৃষ্ণ দাস ব্রহ্মচারী, পুণ্ডরীক বিদ্যানিধি স্মৃতি সংসদের সভাপতি প্রফুল্ল রঞ্জন সিংহ, কেন্দ্রীয় জন্মাষ্টমী পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট চন্দন তালুকদার, নগর হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নিতাই প্রসাদ ঘোষ ও কেন্দ্রীয় জন্মাষ্টমী পরিষদের সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট তপন কান্তি দাশ।

এ ছাড়া বাংলাদেশ হিন্দু ফাউন্ডেশনের সাবেক চেয়ারম্যান দিলীপ মজুমদার, ইসকন নন্দনকানন সাধারণ সম্পাদক তারণ নিতানন্দ দাস ব্রহ্মচারী, কেন্দ্রীয় জন্মাষ্টমী পরিষদের যুগ্ম সম্পাদক প্রকৌশলী আশুতোষ দাশ, নগর পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি অরবিন্দ পাল অরুণ, বিভাগীয় গৃহস্থ কাউন্সিল সদস্য বলরাম করুণা দাস, গৌর পূর্ণিমা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সুমন চৌধুরী।

উপস্থিত ছিলেন ইসকন ন্যাশনাল কমিটির সদস্য সর্বমঙ্গল গৌর দাস, যুগ্ম সম্পাদক মুকুন্দ ভক্তি দাস ব্রহ্মচারী, কোষাধ্যক্ষ সুবলসখা দাস ব্রহ্মচারী, শেষরূপ দাস ব্রহ্মচারী, অপূর্ব মনোহর দাস ব্রহ্মচারী, লীলেশ্বর গোবিন্দ দাস প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়:১৭৫০ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০১৮
জেইউ/টিসি

গরমে স্বস্তি পেতে চাই সবুজ নগরী
১৪ দলের পরিধি বাড়াতে আপত্তি শরিকদের
দাউদকান্দিতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক ব্যবসায়ী নিহত
লালমনিরহাটে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ধর্ষক গ্রেফতার
‘বুলেটের চেয়েও শক্তিশালী ব্যালট’
ছুরিকাঘাতে প্রাণ গেলো অলিম্পিক পদকজয়ী ফিগার স্কেটারের
গোবিন্দগঞ্জে মাধ্যমিকের বই জব্দের ঘটনায় আটক ১
৩ ভাইয়ের প্রচেষ্টায় ৪ ঘণ্টায় ১ ইলিশ!
এখন সংগ্রাম জাতি হিসেবে গৌরব অর্জনের
কক্সবাজার লিংক রোডে ইসলামী ব্যাংকের ৩৩৭তম শাখা