আশ্রয়কেন্দ্রে জন্ম ৬৫৩ রোহিঙ্গা শিশুর

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

রোহিঙ্গা নাগরিকদের মানবিক সহায়তা বিষয়ক আন্ত:সংস্থা সমন্বয় সভা

চট্টগ্রাম: মিয়ানমারে নিপীড়নের মুখে বাংলাদেশে পালিয়ে এসে কক্সবাজারের উখিয়া ও টেকনাফে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের মধ্যে এখন পর্যন্ত ৬৫৩ শিশুর জন্ম হয়েছে বলে জানিয়েছেন সিভিল সার্জন ডা. মো. আব্দুস সালাম।

মঙ্গলবার (১৭ অক্টোবর) রোহিঙ্গা নাগরিকদের মানবিক সহায়তা বিষয়ক আন্ত:সংস্থা সমন্বয় সভা কক্সবাজারের সার্কিট হাউসে অনুষ্ঠিত হয়। সভায় কক্সবাজার সিভিল সার্জন এই তথ্য জানান। 

সিভিল সার্জন জানান, এখন পর্যন্ত ৭ হাজার গর্ভবতী রোহিঙ্গা নারীকে চিকিৎসা সেবা দেওয়া হয়েছে আর এখন পর্যন্ত ৬৫৩ জন শিশু জন্মগ্রহণ করেছে।

জেলা প্রশাসক আলী হোসেনের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া।

বিশেষ অতিথি ছিলেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. শাহ্ কামাল। এছাড়া কক্সবাজার রিফিউজি ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার আবুল কালামসহ বিভিন্ন অধিদপ্তরের কর্মকর্তা ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা সভায় উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর মহানুভবতা ও মানবিকতায় রোহিঙ্গাদের সব ধরনের মানবিক সহায়তা দেওয়া হচ্ছে বলে সভায় উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, মানুষ মানুষের জন্য। সভ্যতার বিকাশের এমন সময়ে আমরা চোখের সামনে কোন লোককে গুলির মুখে ঠেলে দিতে পারিনা। তাই প্রধানমন্ত্রী কষ্টকর হওয়া সত্ত্বেও রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়েছেন।

বিশ্ব সমাজ রোহিঙ্গাদের পাশে দাঁড়াবে, মায়ানমারে রোহিঙ্গাদের বসবাসের উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি করে তাদের নিজ বাসভূমে ফিরিয়ে নিবে এবং বাস্তুচ্যুতি থেকে একটি জাতিকে রক্ষা করবে বলে তিনি মন্ত্রী আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

বাংলাদেশ সময়: ২২৫০ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৭, ২০১৭

টিএইচ/টিসি

অন্তর্ভুক্ত বিষয়ঃ রোহিঙ্গা

‘বিচারকদের শৃঙ্খলাবিধি নিয়ে ঐক্যমত্য’
তারেক মাসুদের ক্ষতিপূরণ মামলার রায় ২৯ নভেম্বর
মুগাবে নিজেই করছেন পদত্যাগ!
যক্ষ্মা নির্মূলে পাশে থাকবে রাশিয়া-ভারত-মালদ্বীপ
শেকৃবির প্রথমবর্ষের ফলাফলে বিপর্যয়

Alexa