‘রোহিঙ্গাদের জন্য সামাজিক-রাজনৈতিক সমস্যা সৃষ্টি হচ্ছে’

চট্টগ্রাম প্রতিদিন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলছেন ওবায়দুল কাদের

চট্টগ্রাম: মিয়ানমার থেকে আসা রোহিঙ্গাদের কারণে বাংলাদেশে সামাজিক ও রাজনৈতিক সমস্যা সৃষ্টি হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বৃহস্পতিবার (১২ অক্টোবর) কক্সবাজার শহরের বিজয় স্মরণী রোডে সড়ক ভবনের নির্মাণ কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গণমাধ্যম কর্মীদের এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, মায়ানমার থেকে এখনও রোহিঙ্গা আসছে।  রোহিঙ্গার ঢল এখনো আছে।  এত রোহিঙ্গা আমরা কোথায় রাখব ? রোহিঙ্গাদের কারণে আমাদের সামাজিক ও রাজনৈতিক সমস্যা হচ্ছে।

‘মিয়ানমারের উপর আর্ন্তজাতিকভাবে চাপ সৃষ্টি করতে হবে যাতে তারা রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেয়।  সরকার রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠানোর কাজ শুরু করেছে। ’

এসময় অন্যান্যের মধ্যে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিৎ রায় নন্দী, সংসদ সদস্য আশেকউল্লাহ রফিক, কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক আলী হোসেন ও পুলিশ সুপার একেএম ইকবাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

গত ২৪ আগস্ট রাতে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে বিভিন্ন সেনা ও পুলিশের চৌকিতে একযোগে হামলা চালায় রাখাইন বিদ্রোহীরা।  এর জেরে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়লে ২৫ আগস্ট থেকে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ শুরু করে রোহিঙ্গারা।  প্রায় একমাস রোহিঙ্গাঢল অব্যাহত থাকার পর সপ্তাহখানেক অনুপ্রবেশ কমে গিয়েছিল।

অক্টোবরের শুরুতে আবারও কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার শাহপরীর দ্বীপ এবং উখিয়ার পালংখালী ইউনিয়নের আনজুমান ‍পাড়া দিয়ে রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশের ঢল নেমেছে। 

জাতিসংঘের হিসেবে ২৫ আগস্ট থেকে এই পর্যন্ত বাংলাদেশে রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশ পাঁচ লাখ ছাড়িয়ে গেছে।  তবে স্থানীয়দের মতে, রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশের সংখ্যা অনেক বেশি।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৫৩ ঘণ্টা, অক্টোবর ১২, ২০১৭

আরডিজি/টিসি

সাভারে পৃথক ঘটনায় দুই মরদেহ উদ্ধার 
আজও ইতিহাসের সাক্ষ্য বহন করছে মৃগনয়নীর চান্দেরি
আর্জেন্টিনার সঙ্গে ড্র’য়ে একরাতে আড়াই লাখ ফলোয়ার!
৩ দিন পর সচল বেনাপোল-পেট্রাপোল বন্দর
কুমারখালীতে যুবকের ভাসমান মরদেহ উদ্ধার, আটক ৪
রণবীর শুধুই দীপিকার
মাগুরায় বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেল বাবা-মেয়ের
ওটা জেলখানা, কারো বাসভবন নয়
জার্মানি অবশ্যই বাকি সব ম্যাচ জিতবে: মুলার
ঈদের আমেজ সরকারি-বেসরকারি অফিসে