সিটিতে সেনা মোতায়েন নয়: ইসি সচিব 

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সাংবাদিকদের ব্রিফ করছেন ইসি সচিব হেলালউদ্দিন আহমদ। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: স্থানীয় সরকারের আসন্ন দুই সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েনের কোনো পরিকল্পনা নেই বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ। 

মঙ্গলবার (১৭ এপ্রিল) সকালে আগারগাঁও শেরে বাংলানগরে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদার সঙ্গে বিএনপি প্রতিনিধিদলের বৈঠক শেষে ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ এ কথা জানান। 

বৈঠকে আসন্ন দুই সিটি নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের দাবি জানায় বিএনপি। আগামী ১৫ মে গাজীপুর ও খুলনা সিটি করপোরেশনের নির্বাচন হবে।

এ বিষয়ে ইসি সচিব সাংবাদিকদের বলেন, তারা (বিএনপি) অনেকগুলো দাবি জানিয়েছে। এর মধ্যে ইভিএম, সেনা মোতায়েন ও বিতর্কিত কর্মকর্তাদের নির্বাচনী এলাকায় নিয়োগ না দেওয়া উল্লেখযোগ্য। 

‘আমরা বিএনপি প্রতিনিধি দলকে বলেছি, আইনে প্রযুক্তির ব্যবহারের কথা আছে। তাই তাদের প্রত্যেকটি ইভিএম দেখার জন্য প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।’

তিনি বলেন, বিএনপিকে জানানো হয়েছে, স্থানীয় সরকার নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের পরিকল্পনা নেই। গাজীপুরের এসপি হারুন অর রশীদসহ ‘বিতর্কিত’ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার বিষয়েও বলেছেন তারা। ‘আমারা এসব বিষয়ে পরবর্তীতে সিদ্ধান্ত নেবো। আর বিভাগীয় সমন্বয় কমিটি নিয়ে তাদের আপত্তি রয়েছে। তবে এটা আইন অনুযায়ী ঠিক আছে।’

এর আগে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনে নেতৃত্বে দলের সাত সদস্যের প্রতিনিধি দল সিইসির সঙ্গে সাক্ষাৎ করে। 

এ সময় সেনা মোতায়েন ও ইভিএম বাদ দেওয়াসহ বিএনপির পক্ষ থেকে ২৬ দফা দাবি তুলে ধরা হয়। 

বাংলাদেশ সময়: ১৪০৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৭, ২০১৮
ইইউডি/এমএ

বঙ্গোপসাগরে ডুবে যাওয়া ১৭ জেলে উদ্ধার 
প্রধানমন্ত্রীর পুরস্কারপ্রাপ্ত ফজলে করিমকে সম্মাননা
ঢামেকে হত্যা মামলার হাজতির মৃত্যু
একসঙ্গে ৬ মৃত সন্তান প্রসব মৌসুমীর
পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে লঞ্চ চলাচল বন্ধ
সাতকানিয়ায় শিবিরের সভাপতি গ্রেফতার
বিশ্বকাপ ব্যর্থতার কারণ খুঁজছে আফ্রিকান দলগুলো
‘মোহমায়া'য় শ্যামলের সঙ্গে উর্মিলা
৪১ হাজার ইয়াবাসহ মাদক পাচারকারী গ্রেফতার
চকরিয়ায় দু’গ্রুপের গুলিবিনিময়, যুবক নিহত